করোনা উপসর্গ নিয়ে সাবেক এমপি পুতুলের ইন্তেকাল !

89

বগুড়ার সাবেক সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক নারী বিষয়ক সম্পাদক কামরুন্নাহার পুতুল আর নেই (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

বৃহস্পতিবার (২১ মে) রাত সোয়া ১১টার দিকে করোনা উপসর্গ নিয়ে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে তার মৃ’ত্যু হয়।

তিনি প্রয়াত এমপি মোস্তাফিজার রহমান পটলের স্ত্রী। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৫ বছর। তিনি এক ছেলে ও দুই মেয়ের জননী ছিলেন।

বগুড়া সদর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ সামির হোসেন মিশু বাংলানিউজকে জানান, কামরুন্নাহার পুতুল গত কয়েকদিন ধরে জ্বর, কাশি, পাতলা পায়খানা এবং খাবারে অরুচি জনিত সমস্যায় ভুগছিলেন। বৃহস্পতিবার রাতে অবস্থার অবনতি হলে তাকে শজিমেক হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখানেই মা’রা যান তিনি।

তিনি বলেন, কামরুন্নাহার পুতুল ক’দিন আগে তার অসুস্থ ছেলেকে দেখতে ঢাকায় গিয়েছিলেন। সেখান থেকে ফেরার পর থেকে তিনি অসুস্থতা বোধ করেন। তার শারীরিক সমস্যাগুলো করোনা উপসর্গের সঙ্গে মিলে যাওয়ায় তিনদিন আগে তার নমুনা সংগ্রহ করা হয়।

বৃহস্পতিবার রাত পর্যন্ত তার রিপোর্ট পাওয়া যায়নি। তবে করোনা সন্দেহভাজন হিসেবেই তার লা’শ দা’ফ’নে’র ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

উল্লেখ্য- ১৯৯৬ সালে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পর কামরুন্নাহার পুতুল তৎকালীন বগুড়া-জয়পুরহাট জেলার সংরক্ষিত নারী আসনে এমপি মনোনীত হয়েছিলেন। তার স্বামী মোস্তাফিজার রহমান পটল ১৯৭৩ সালে আওয়ামী লীগের মনোনয়নে বগুড়ার গাবতলী আসনের সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।

পটুয়াখালীর পৌর মেয়র মহিউদ্দিন আহম্মেদ করোনায় আ’ক্রা’ন্ত

পটুয়াখালী পৌরসভার মেয়র মহিউদ্দি আহম্মেদ করোনা ভা’ইরাসে আ’ক্রা’ন্ত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার রাতে পৌর মেয়র নিজেই বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

মেয়র মহিউদ্দিন আহম্মেদ জানান, দেশে করোনা ভা’ইরাসের সংক্রমণ শুরু হবার পর থেকে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে তিনি বিভিন্ন ধরনের কার্যক্রমের সাথে সম্পৃক্ত ছিলেন। বিশেষ করে ত্রাণ তৎপরতায় তিনি সরাসরি অংশ গ্রহন করেছেন।

গত ১৯ মে থেকে শরীরে একটু জ্বর অনুভব করলে বাইরে যাওয়া বন্ধ করে দেন এবং করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা প্রদান করেন। বৃহস্পতিবার রাতে তাকে স্বাস্থ্য বিভাগে পক্ষ থেকে জানানো হয় রিপোর্টে তার করোনা ভাইরাস পজিটিভ।

মেয়র মহিউদ্দিন আহম্মেদ সকলের কাছে তার সুস্থতার জন্য দোয়া চেয়েছেন। পাশাপাশি যেহেতু ইতিমধ্যে জেলার অনেকের করোনা ভা’ইরাসের সংক্রমণ হয়েছে সেহেতু সকলকে স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলতেও অনুরোধ করেন মেয়র।

মেয়র মহিউদ্দিন আহম্মেদ বর্তমানে তার বাসভবনে আইসোলেশনে রয়েছেন, সেখানেই তার চিকিৎসার প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।